রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৫:০৮ অপরাহ্ন

রংপুর নগরীর ধাপ এলাকায় নারীকে মারধোরের অভিযোগ

রংপুর নগরীর ধাপ এলাকায় নারীকে মারধোরের অভিযোগ

রংপুর নগরীর ধাপ এলাকায় এক নারীকে চারজন নারী পুরুষ নিয়ে দোকানের সাটার বন্ধ করে মারধোরের অভিযোগ উঠেছে। শনিবার(১৩ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় ধাপ পুলিশ ফাড়ির কাছে একটি ভবনে এ ঘটনা ঘটে।বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ধাপ ফাড়ির ইনচার্জ মাহমুদ হাসান।

ভুক্তভোগী ওই নারী অভিযোগ করেন,এই ভবনটি নিয়ে ইতিমধ্যে আইনি লড়াই চলছে কিন্তু তারা এসে দোকানপাট খুলে বসেছেন এতে বাধা দিলে অভিযুক্তরা দোকানের সাটার বন্ধ করে আমাকে মারধোর করে।

তিনি আরো বলেন,দেবর দুলার প্রথমে শরীরে আঘাত করে এরপর শাহানাজ,কানিজ,শিউলি সহ সবাই মিলে মারধোর করে।এতে চোখের বাম দিকে আঘাত পাই সেই সাথে মেরে ফেলার হুমকি দেয় তারা।আমাকে প্রায় এরা মারধোর করে,এর সুষ্ট বিচার চাই।

এদিকে অভিযুক্ত শাহনাজ বলেন,এই অভিযোগটি মিথ্যা এবং বানোয়াট। আমরা আজকে সিসিটিভি ক্যামেরা বসানোর জন্য এখানে এসেছিলাম।আমার স্বামী দুলাল উপস্থিত ছিলেন না অথচ উনি তার দোষ দিচ্ছেন।কেউ ওনাকে আঘাত করেনি।

আরেক অভিযুক্ত ফারজানা বলেন,উনি আমাদের সাখে তর্কে জড়িয়ে নিজেই পরে গেছেন ওনার শরীরে কেউ আঘাত করেনি।ওখানে যারা ছিলো সবাই দেখেছেন।ওনাকে বারবার সরে যেতে বলা হয়েছিল উনি কথা শোনেননি।

প্রত্যক্ষদর্শী আশিক জানান,অভিযুক্তরা যখন সিসিটিভি ক্যামেরা স্থাপনে ব্যাস্ত ঠিক তখনই ভুক্তভোগী এসে তাদের সাথে তর্কে জড়ায় এক পর্যায়ে উনি পরে যান।

এবিষয়ে ধাপ ফাড়ি ইনচার্জ মাহমুদ হাসান বলেন,তারা একই পরিবারের সদস্য। তাদের মধ্যে জমি ভাগাভাগি নিয়ে মামলা চলছে। আজকে আমরা ফোন পেয়ে সেখানে যাই তবে মারামারির ঘটনা ঘটেনি।অভিযোগ পেলে ব্যাবস্থা গ্রহন করা হবে।

আপনার স্যোসাল মাধ্যমে শেয়ার দিন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved © 2023 teestasangbad.com
Developed BY Rafi It Solution