শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০২:০৭ অপরাহ্ন

সাংবাদিকদের চিকিৎসা করবেন না বলে ডা. জিয়ার হুমকি: ক্ষুব্ধ রংপুরের সাংবাদিক সমাজ

সাংবাদিকদের চিকিৎসা করবেন না বলে ডা. জিয়ার হুমকি: ক্ষুব্ধ রংপুরের সাংবাদিক সমাজ

 

বার্ণ ইউনিটের তথ্য জানার জন্য ফোন দিলে একাধিক সাংবাদিকের সাথে রংপুর মেডিকলে কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটের চিকিৎসক জিয়াউর রহমান জিয়া দূর্ব্যবহার করেন। দূর্ব্যবহার বিষয়ে ফোন দিলে তিনি সাংবাদিকদের কোন চিকিৎসা করবেন না বলে হুমকি দেন এসময়। এ নিয়ে ক্ষুব্ধ রংপুরের সাংবাদিক সমাজ।
ভুক্তভোগি বাংলাদেশ প্রতিদিন রংপুর জেলার প্রতিনিধি সিনিয়র সাংবাদিক রোববার সন্ধ্যায় মোবাইল ফোনে বার্ন ইউনিটের সর্বশেষ তথ্য জানতে চাইলে ডা. জিয়া তার সাথে দুর্ব্যবহার করেন। নজরুল মৃধা বিষয়টি সাথে সাথে সাংবাদিক সমাজের নেতৃবৃন্দকে জানালে তারা ডা. জিয়ার সাথে মোবাইল ফোনে কথা বলেন। একুশে টেলিভিশনের রংপুর প্রধান ও রংপুর সাংবাদিক সমাজের আহবায়ক লিয়াকত আলী বাদল ডা. জিয়ার সাথে যোগাযোগ করলে তার সাথেও চরম দুর্ব্যবহার এবং অশালীন কথাবার্তা বলেন ডা. জিয়া।

বিষয়টি নিয়ে রংপুর প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মেরিনা লাভলি ও সিটি প্রেসক্লাবের সভাপতি স্বপন চৌধুরী বিষয়টি জানার পর ওই চিকিৎসকের কাছে জানতে চাইলে তিনি সদুত্তর দিতে পাারেননি। উল্টো স্বপন চৌধুরীকে বলেন, এখন থেকে কোন সাংবাদিকের চিকিৎসা তিনি করবেন না। তার এমন কথার প্রেক্ষিতে রংপুরের সাংবাদিক সমাজের পক্ষ থেকে ৪৮ ঘন্টার আলটিমেটাম দেওয়া হয়েছে।

উক্ত সময়ের মধ্যে ডা. জিয়া প্রকাশ্যে দুঃখ প্রকাশ করে ক্ষমা না চাইলে মানবন্ধনসহ বৃহত্তর বর্মসূচি ঘোষণা করা হবে বলে জানান সাংবাদিক নেতারা। এ ব্যাপারে হাসপাতালের পরিচালক ডা. ইউনুস আলী সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ‘আমি ঢাকায় রয়েছি। বিষয়টি রংপুরে গিয়ে দেখব।

ডা. জিয়ার এমন ব্যবহারে প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মেরিনা লাভলি, সিটি প্রেসক্লাবের সভাপতি স্বপন চৌধুরী, রিপোর্টাস ক্লাব রংপুরের সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান লুলু, রংপুর সাংবাদিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক সরকার মাজাহার মান্নান, রংপুর রিপোর্টাস ক্লাবের সভাপতি নজরুল ইসলাম রাজুসহ বিভিন্ন সাংবাদিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ তীব্র নিন্দা ও ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। তারা উক্ত চিকিৎসককে নিঃশর্ত ক্ষমা চাইতে বলেন। অন্যথায় মানববন্ধনসহ বৃহত্তর কর্মসূটি গ্রহণ করা হবে বলে জানান সাংবাদিক নেতৃবৃন্দ।

এ বিষয়ে ডাঃ জিয়ার সাথে কথা বলার জন্য একাধিকবার ফোন দিলেও ফোন রিসিভ করেননি।

উল্লেখ্য চিকিৎসক জিয়াউর রহমান জিয়ার বাড়ি রংপুর জেলার পীরগঞ্জ থানার কুমুদপুর এলাকায়। বর্তমান স্বাস্থ্য সচিব জাহাঙ্গীর আলম এর বাড়িও পীরগঞ্জ। এজন্য তিনি স্বাস্থ্য সচিবের নাম ব্যবহার করে ক্ষমতার দাপট দেখায় বলে জানা গেছে।

আপনার স্যোসাল মাধ্যমে শেয়ার দিন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved © 2023 teestasangbad.com
Developed BY Rafi It Solution