1. jfjoy24@gmail.com : admin :
  2. wordpressdefaults@gmail.com : defaults :
রংপুরের বদরগন্জে ঘুমন্ত সন্তানকে জবাইয়ের চেষ্টা | তিস্তা সংবাদ
মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪, ১১:৫০ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
রংপুরে ডাক্তার ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারকে ৪ লাখ টাকা জরিমানা সাবেক প্রতিমন্ত্রী জাকিরের বিরুদ্ধে পিস্তল উঁচিয়ে প্রতিবেশীকে হুমকি, (জিডি) নথিভুক্ত পীরগাছায় উপজেলা হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা কমিটির মাসিক সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত গঙ্গাচড়ায় শেখ হাসিনা সেতুর কার্পেটিংয়ে ফাটল, ভারী যানবাহনে নিষেধাজ্ঞা রংপুরে মরিচক্ষেত থেকে অজ্ঞাত যুবকের মর*দেহ উদ্ধার রংপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের আয়োজনে ঈদ ক্রিকেট ফেস্টিভ্যালের পুরুষ্কার বিতরণ ঈদে দর্শনার্থীদের পদচারণায় মুখর আলী বাবা থিম পার্ক বিনোদন কেন্দ্র বিষাক্ত সাপ রাসেলস ভাইপার আতঙ্ক, বন বিভাগের ৭ পরামর্শ দিল্লির রাষ্ট্রপতি ভবনে শেখ হাসিনাকে রাজকীয় সংবর্ধনা তিস্তায় নৌকাডুবি: দ্বিতীয় দিনের অভিযান শেষ, এক পরিবারের ৪ জনসহ এখনও নিখোঁজ ৬

রংপুরের বদরগন্জে ঘুমন্ত সন্তানকে জবাইয়ের চেষ্টা

প্রতিনিধি
  • আপডেট বৃহস্পতিবার, ৩ জুন, ২০২১
  • ১৭৪

 

ঘুমন্ত মাকে জবাই করে হত্যার রেশ না কাটতেই এবার নিজের সন্তানকে জবাই করে হত্যার চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে মিজানুর রহমান (৪৫) নামে এক পাষণ্ড বাবার বিরুদ্ধে। গুরুতর আহত শিশুটির নাম আরাফাত রহমান রিফাত (১৪)। শিশুটির মাথায় পর পর পাঁচটি আঘাত করার পর তাকেও জবাই করার চেষ্টার সময় অল্পের জন্য প্রাণে রক্ষা পায় শিশুটি। আশঙ্কাজনক অবস্থায় রিফাতকে রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আজ বৃহস্পতিবার সকালের দিকে ঘটনাটি ঘটে রংপুরের বদরগঞ্জ উপজেলার রামনাথপুর ইউনিয়নের খালিশা হাজীপুর গ্রামে। এ ঘটনায় মিজানের বড় ভাই আমিনুল ইসলাম বাদী হয়ে মামলা করেন। পরে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে জেলহাজতে পাঠায়।

স্বজন ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, চার বছর আগে ঘাতক মিজানুর রহমান স্ত্রী আরিফা বেগমকে ঘুমন্ত অবস্থায় বটি দিয়ে জবাই করে হত্যা করে। এ ঘটনায় ওই সময় থানায় মামলা হয়। পরে মিজানুরের স্বজনরা মানসিক রোগীর সনদ দিয়ে আদালত থেকে তাকে জামিনে ছাড়িয়ে নেন। স্ত্রী হত্যার ওই মামলা এখনও চলমান। এ ঘটনার তিন বছর পর বৃহস্পতিবার সকালে মিজান তার ছেলে রিফাতকে বদরগঞ্জ পৌর শহরের স্টুডিও ব্যবসার কাজে যেতে বলেন। ঘুম থেকে উঠতে সামান্য দেরি হওয়ায় ক্ষিপ্ত হয়ে প্রথমে রিফাতের মাথায় এলোপাতাড়ি আঘাত করা হয়। সে জ্ঞান হারিয়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়লে বটি দিয়ে জবাই করে হত্যার চেষ্টা চালায় মিজান। এ সময় বাড়ির লোকজন এগিয়ে আসলে ওই সময় সে প্রাণে রক্ষা পায়।

বদরগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা আরশাদ আলী বলেন, শিশুটির মাথায় ৫টি ও গলায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। আশঙ্কাজনক অবস্থায় উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে রংপুরে পাঠানোর পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে বদরগঞ্জ থানার ওসি হাবিবুর রহমান বলেন, ঘটনাস্থল পরির্শন করে অভিযুক্ত মিজানকে গ্রেপ্তার করে আদালতের মাধ্যমে হাজতে পাঠানো হয়েছে।

আপনার স্যোসাল মাধ্যমে শেয়ার দিন

এই বিভাগের আরো খবর
© ২০২৪ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | তিস্তা সংবাদ.কম
Theme Customization By NewsSun