1. jfjoy24@gmail.com : admin :
  2. wordpressdefaults@gmail.com : defaults :
৪ বছর ধরে ‘একঘরে’ রংপুরের খলেয়া'র একটি পরিবার | তিস্তা সংবাদ
বুধবার, ১৯ জুন ২০২৪, ০১:১৩ পূর্বাহ্ন

৪ বছর ধরে ‘একঘরে’ রংপুরের খলেয়া’র একটি পরিবার

প্রতিনিধি
  • আপডেট বৃহস্পতিবার, ৮ জুলাই, ২০২১
  • ১৬৮

ষ্টাফ রিপোর্টারঃ

রংপুর সদর উপজেলার খলেয়া ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ডের দোলা পাড়ায় জমি-জমা কেন্দ্রিক বিরোধের জের ধরে একটি পরিবারকে চার বছর ধরে একঘরে করে রাখার অভিযোগ পাওয়া গেছে। মসজিদে নামাজ পড়তে দেয়া হয়না পরিবারটির সদস্যদের। মক্তবে পড়তে যাওয়া শিশুটিকে মসজিদ থেকে বের করে দেয়া হয়েছে। জমি-জমা কেন্দ্রিক বিরোধের জের ধরে এবং নিজ স্ত্রীকে সরকারী ভাবে ফিরিয়ে আনায় কয়েকজন সমাজপতির বিরুদ্ধে এই অভিযোগ করেছে পরিবারটি। সম্প্রতি ওই পরিবারটির উপর হামলা ও আখ ক্ষেত নষ্ট করার অভিযোগে গংগাচড়া থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে জেসমিন নাহার নামের এক নারী। থানায় দাখিল করা অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, মানিক মিয়া, যাদু মিয়া ও মনু মিয়ার সাথে জায়গা-জমি নিয়ে অনেক দিন ধরেই বিরোধ চলে আসছিলো। এই সুযোগে লোক সামাজে মিথ্যা রটিয়ে সামাজিক ভাবে বিভিন্ন আচার অনুষ্টান এবং মসজিদে প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা জারি করে পরিবারটিকে চার বছর ধরে একঘরে করে রাখা হয়েছে। জেসমিন নাহার বলেন, মানিক মিয়া, যাদু মিয়া ও মনু মিয়া পাড়ার দেওয়ানী। ওরা যা করবে গ্রামবাসী তাই মেনে নেবে। ওরা আমাদের উপর অনেক জুলুম করেছে। এবার অসহ্য হয়ে গেছে তাই থানায় অভিযোগ দায়ের করেছি। জেসমিন নাহারের স্বামী শহিদুল ইসলাম বলেন, মানিক মিয়া, যাদু মিয়া ও মনু মিয়ার গ্রামে খুব প্রভাবশালী। আমার সন্তানকে মক্তবে যেতে দেয় না ওরা। এর সঙ্গে মসজিদের ইমাম মাওলানা আব্দুল মজিদও জড়িত আছে। এটি আমাদের উপর জুলুম। সরকারের কাছে ন্যায় বিচার চাই। খলেয়া ইউনিয়নের বিট ইনচার্জ উপপরিদর্শক ফারুক বলেন, আমি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। দ্রুত আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। গংগাচড়া থানার ওসি সুশান্ত কুমার সরকার বলেন, তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আপনার স্যোসাল মাধ্যমে শেয়ার দিন

এই বিভাগের আরো খবর
© ২০২৪ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | তিস্তা সংবাদ.কম
Theme Customization By NewsSun